Breaking News

সুমাইয়া ও রিতু’র হত্যাকারীদের শাস্তির দাবীতে সমাবেশ ও মিছিল

1601422_743653392367575_5104078214569760496_nলালবাগের হালিমা সাদিয়া মহিলা মাদ্রাসার আবাসিক ছাত্রী সুমাইয়া আক্তার হত্যা ও খিলগাঁও-এর নন্দীপাড়ার উম্মে কুলসুম রিতুর মৃত্যর সাথে জড়িতদের গ্রেফতার ও বিচারের দাবীতে বাংলাদেশ নারীমুক্তি কেন্দ্র, ঢাকা নগর শাখার উদ্যোগে ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৪ বিকাল ৪টায় জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে মানববন্ধন ও মিছিল অনুষ্ঠিত হয়। মানববন্ধন-সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন নগর শাখার সহ-সভাপতি মর্জিনা খাতুন এবং সভা পরিচালনা করেন সাধারণ সম্পাদক তাছলিমা নাজনীন সুরভী। সমাবেশে বক্তব্য রাখেন নারীমুক্তি কেন্দ্র’র কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি সীমা দত্ত, ঢাকা নগর শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক তছলিমা আক্তার বিউটি, সংগঠক ও  সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্ট ঢাকা নগর শাখার সভাপতি নাঈমা খালেদ মনিকা, দপ্তর সম্পাদক ইভা মজুমদার। সমাবেশে সুমাইয়া হত্যার বিচার ও হত্যার সাথে জড়িতদের গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবী করে বক্তব্য রাখেন সুমাইয়ার বাবা মোবারক আলী, মা পেয়ারা বেগম এবং এলাকাবাসীর পক্ষ থেকে রুবিনা আক্তার।
সমাবেশে সুমাইয়ার বাবা-মা বলেন, আমার মেয়ে সুমাইয়া আক্তার মাত্র এক মাস আগে হালিমা সাদিয়া মহিলা মাদ্রাসায় ভর্তি হয় এবং ১১ সেপ্টেম্বর লাশ হয়ে আমাদের কাছে ফিরল। যে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান আমার শিশুকে দেহ-মনে বিকশিত করবে সেই মাদ্রাসা আমার কাছে মৃত্যুকূপ। আবাসিক মাদ্রাসায় আমার ১১ বছরের  মেয়ে  কি করে হত্যার শিকার হল তার দায়-দায়িত্ব ঐ মাদ্রাসা কর্তৃপক্ষকে নিতে হবে। মাদ্রাসার কর্তৃপক্ষ কোনভাবেই এই দায় এড়াতে পারে না। সেজন্য আমি ঐ মাদ্রাসা কর্তৃপক্ষসহ হত্যার  সাথে জড়িতদের অবিলম্বে গ্রেফতার দাবী করছি। অন্যদিকে সুমাইয়ার হত্যার প্রকৃত কারণ পুলিশ উৎঘাটন না করে তাকে আত্মহত্যা বলে চালানোর যে পায়তারা করছে তা অবিলম্বে বন্ধ করে হত্যা মামলা দায়ের ও  সুষ্ঠু তদন্ত দাবী করছি। সুমাইয়ার হত্যা নিয়ে পুলিশের ভূমিকার প্রতি আমাদের কোন আস্থা নেই। সেজন্য সিআইডির মাধ্যমে মামলা তদন্ত ও পরিচালনা করারও দাবী জানাচ্ছি।
Nari Mukti 19 Sep 2014সমাবেশে বক্তারা আরো বলেন, খিলগাঁয়ের নন্দীপাড়ার উম্মে কুলসুম রিতুর উত্ত্যক্তকারী প্রধান আসামী শিমুলকে এখনও পুলিশ গ্রেফতার করতে পারেনি। পরিবার, স্কুলের শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও এলাকাবাসী সবার দাবী অবিলম্বে আসামীদের  গ্রেফতার ও  দৃষ্টান্তমূলক দিতে হবে। তাহলে কেন আজও শিমুল গ্রেফতার হল না? আমরা দেখি এই সকল ঘটনার সাথে প্রভাবশালী মহল যুক্ত। আর কুলসুমের এই মৃত্যুর দায় কোনভাবেই পুলিশ প্রশাসন ও সরকার এড়াতে পারে না। কুলসুমের উত্যক্তকারী বখাটেদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি না হলে কুলসুমের মায়ের বুক যেমন খালি হয়েছে তেমনি আরো অনেক মায়ের বুক খালি হবে। তাই কুলসুমের উত্যক্তকারী শিমুলসহ সকল আসামীদের বিচার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করছি।
অন্যদিকে বক্তারা সর্বোচ্চ বিদ্যাপীঠ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের যৌননিপীড়নকারী শিক্ষক নামের কলঙ্ক  থিয়েটার এন্ড পারফরমেন্স স্টাডিজ বিভাগের অধ্যাপক সাইফুল ইসলামকে চাকুরি থেকে স্থায়ী বহিষ্কারের দাবি  করেছে। একই সাথে বক্তারা মানিকগঞ্জের হরিরামপুর উপজেলার পাটগ্রাম অনাথবন্ধু সরকারি উচ্চবিদ্যালয়ের যৌননিপীড়নকারী সহকারী শিক্ষক সুভাষ চন্দ্র রায়কে অবিলম্বে চাকরি থেকে বরখাস্ত করার দাবী করেছে।  সাংস্কৃতিক অবক্ষয় আজ কোন্ জায়গায় গিয়ে পৌঁছেছে যে একজন ছাত্রী মাদ্রাসা, প্রাথমিক বিদ্যালয় থেকে উচ্চশিক্ষাপ্রতিষ্ঠান কোথাও নিরাপদ নয়। পুঁজিবাদের এই অবক্ষয়ী সংস্কৃতির বিরুদ্ধে দেশপ্রেমী সংগ্রামী সকল মানুষের আজ ঐক্যবদ্ধ আন্দোলন গড়ে তোলার আহবান জানান বক্তারা।

Check Also

22221651_1517396354970145_9058055452867752471_n

অক্টোবর বিপ্লব শতবর্ষ উদযাপনের উদ্বোধনী সমাবেশ অনুষ্ঠিত

রুশ বিপ্লবের অনুপ্রেরণায় বাংলাদেশে শ্রমিক-কৃষক-মেহনতি মানুষের রাষ্ট্র কায়েম করতে হবে – অধ্যাপক সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী ৬ অক্টোবর …